চলছে চমৎকার জমজমাট শিক্ষক ব্যবসা

0
283

রাতুল তালুকদার: রাজধানীর রাস্তায় হাটতে বের হলেই চোখে পড়ে নানান বিজ্ঞাপন। এর মাঝে বড় বড় অক্ষরে লেখা থাকে “টিউটর দিচ্ছি/নিচ্ছি”। ছাত্রদের সবচেয়ে পছন্দের কাজ হল টিউশনি। এতে নিজের পড়া চর্চার পাশাপাশি কিছু অর্থের যোগানও হয়ে থাকে। আবার কেউ কেউ আছে যারা পড়াশোনা ও নিজস্ব সকল খরচের পর পরিবারকেও সাহায্য করে।

বেশিরভাগ মধ্যবিত্ত ঘরের সন্তানদের মাসিক খরচ চলে এই টিউশনির মাধ্যমে। আর সেই সকল সুযোগকে পুঁজি বানিয়ে অর্থ উর্পাজন করছে শিক্ষক ব্যবসায়ীরা। এক কথায় মুখোশধারী টিউশন মিডিয়ার লোকেরা।

এই শিক্ষক বাণিজ্য কিছু কিছু তরুণ/তরুণীকে ঠেলে দিচ্ছে ঝামেলার মুখে। কেউ কেউ আছে যারা ১টি টিউশনি করে সারা মাসের খরচ চালায়। কিন্তু এইসব টিউশন মিডিয়ার কারণে তারা টিউশনি পায় না। পেলেও ১ম মাসের বেতনের ৫০% থেকে ৬০% দিয়ে দিতে হয় তাদের। ঘটনার সত্যতা যাচায়ের জন্য টিউশনির খোজে ফোন করা হয় এক মিডিয়ায়। তিনি বলেন রেজিস্ট্রেশন করার জন্য লাগবে ৫০০/- টাকা। ২-৩ মাসের মধ্যে টিউশনি দেয়া হবে এবং টিউশনির ১ম মাসের বেতন থেকে ৫০% কেটে নেয়া হবে।

এমন সময় তাকে প্রশ্ন করা হয় যে, পড়াব আমি আপনি কেন ৫০% নিবেন? সে বলেন এটাই তার ব্যবসা। আর একেই আমরা বলছি শিক্ষক ব্যবসা। ক্রেতা হলো শিক্ষার্থীর অবিভাবকরা আর শিক্ষক হলেন পণ্য। এই হল টিউশন মিডিয়া।

Facebook Comments